১৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৯ ৪:৫:১৪
logo
logo banner
HeadLine
দ্রুতগতিতে চলছে ১০ মেগা প্রকল্প ও ১০০ অর্থনৈতিক অঞ্চলের নির্মাণকাজ * ভবিষ্যতে তরুণদের সুযোগ করে দিতে চাই - শেখ হাসিনা * একদিন আগেই শুরু হল বিশ্ব এজতেমা * ছয় দিনের সফরে প্রধানমন্ত্রী আজ জার্মানি যাচ্ছেন * ২৮ দিনে জমির নামজারি , সর্বোচ্চ ৫৩ দিনে নক্সা অনুমোদন, ভবন নির্মাণে বীমা বাধ্যতামুলক * ভবিষ্যত প্রজন্মের জন্য উন্নত দেশ গড়তে চাই - প্রধানমন্ত্রী * ঠাকুরগাঁওয়ে বিজিবি গ্রামবাসী সংঘর্ষ, নিহত চার * কর্ণফুলী টানেল : চট্টগ্রাম হবে ওয়ান সিটি টু টাউন * ১১ মার্চ ডাকসু নির্বাচন * 'জয় বাংলা' মুক্তিযুদ্ধের স্লোগান, বীর বাঙালীর স্লোগান * সব হজযাত্রায় খরচ বেড়েছে * ডাকসু'র তফসিল আজ * অল্প জমি ও মাটি ছাড়া সবজি, ফুল, ফল উৎপাদনের প্রযুক্তিকে চাষী পর্যায়ে নিয়ে যান - কৃষিমন্ত্রী * আরও ১২২ উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগ প্রার্থীর নাম ঘোষণা * রোহিঙ্গাদের জন্য নিরাপদ বাসস্থান চায় ঢাকা * হিন্দুকুশের বরফ দ্রুত গলছে : ভেসে যাবে দশ নদীর অববাহিকা , বিপন্ন হবে ২শ' কোটি লোক * উপজেলা নির্বাচনে ৮৭ চেয়ারম্যান প্রার্থীর নাম ঘোষণা করল আওয়ামীলীগ, ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থীতা থাকবে উন্মুক্ত * জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত আসনে আওয়ামী লীগের ঘোষনা * শিশুদের ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়ানো হবে আজ * দুর্নীতির বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রীর অঙ্গীকার বাস্তবে রূপ দিতে হবে * সব ধরনের কোচিং বাণিজ্য বন্ধে সরকারের নীতিমালা বৈধ: হাইকোর্ট * সন্দ্বীপ-চট্টগ্রাম ব্রিজ নির্মাণের সম্ভাব্যতা যাচাই ও সন্দ্বীপে একটি প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের আহবান জানালেন প্রধানমন্ত্রী * ২১ গুণীজনের ২১শে পদক লাভ * দুদকের ৩৩ মামলায় ৩৮৪ বছর কারাদণ্ড হয়েছিল নির্দোষ জাহালমের! * প্রতিটি ঘরে বিদ্যুৎ পৌঁছে দেওয়া হবে - প্রধানমন্ত্রী * সব ধরনের মামলা দ্রুত নিষ্পত্তি করার তাগিদ দিলেন প্রধানমন্ত্রী * এবারের বিশ্ব ইজতেমা ৪ দিনে অনুষ্ঠিত হবে: ধর্ম প্রতিমন্ত্রী * উপজেলা নির্বাচনে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন ফরম বিক্রি শুরু * উপজেলা নির্বাচনের প্রথম দফা তফসিল আজ * আসছে ৫ লাখ কোটির বাজেট : নির্বাচনী ইশতেহার হচ্ছে মূল ভিত্তি , উদ্দেশ্য দারিদ্র্য বিমোচন, কর্মসংস্থান, সামাজিক সুরক্ষা এবং বিনিয়োগে আকৃষ্ট করা *
     10,2018 Sunday at 18:31:27 Share

এশিয়া কাপ টি-টোয়েন্টিতে চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশের মেয়েরা

এশিয়া কাপ টি-টোয়েন্টিতে চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশের মেয়েরা

স্বপ্নটা পূরণ হলো এবার। ছেলেরা অল্পের জন্য ব্যর্থ হলেও এশিয়া কাপ টি-টোয়েন্টিতে ভারতকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করলো বাংলাদেশের মেয়েরা। টানা পঞ্চম জয়ে এই অনন্য অর্জন ছিনিয়ে নিলো সালমারা।


 চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পথে ভারতকে দুইবার ও পাকিস্তানকে একবার পরাজিত করেছে তারা। এছাড়াও জয় তুলে নিয়েছে থাইল্যান্ড ও মালয়েশিয়ার বিপক্ষেও। শনিবার মালয়েশিয়ার কুয়ালালামপুরে অনুষ্ঠিত নারী এশিয়া কাপ টি-টোয়েন্টির ফাইনালে ভারতের বিরুদ্ধে তিন উইকেটের জয় পেয়েছে মেয়েরা।


২০০৪ থেকে শুরু হয়েছে মেয়েদের এশিয়া কাপ। ভারত গত ৬ আসরের সবগুলোতেই চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। বাংলাদেশ এবারের আসরসহ তিনটি আসরে মাঠে নেমেছে। আগের দুই আসরে সাদামাটা পারফরম্যান্স করলেও তৃতীয় আসরে শিরোপা জেতার স্বাদ পেয়েছে সালমারা। শুধু তাই নয়, আরও একটি বৃত্ত ভেঙেছে বাংলাদেশ। এতদিন ভারতের বিপক্ষে খেলা মানেই ছিল বাংলাদেশে হার। তবে এবার বাংলাদেশকে হতাশ হতে হয়নি। ১০টি টি-টোয়েন্টিতে মুখোমুখি হয়ে ভারত জিতেছে ৮টিতে। হারের বৃত্ত ভেঙে বাংলাদেশ এই টুর্নামেন্টেই জিতলো দুটিতে।


টস জিতে ভারতকে ব্যাটে পাঠায় বাংলাদেশ। কুয়ালালামপুরে ভারতের দেওয়া ১১৩ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে খুব বেশি বেগ পেতে হয়নি বাংলাদেশের। জাহানার-শুকতারার ব্যাটে সহজেই এসেছে জয়। ওপেনিং জুটিতে আয়েশা ও শামিমা শুরুটা ভালোই করেছিলেন। তবে ভারতীয় স্পিনার পূনম যাদবের পর পর দুই বলে আয়েশা (১৬) ও শামিমা (১৭) সাজঘরে ফিরলে কিছুটা বিপদে পড়ে গিয়েছিল বাংলাদেশ। এই জুটিতে আসে ৩৫ রান। দুই ওপেনারকে হারিয়ে ভারতের বিপক্ষে গ্রুপ পর্বে হাফসেঞ্চুরি করা ফারজানা হক ও মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান নিগার সুলতানা দেখে শুনে খেলতে থাকেন। যদিও অফস্ট্যাম্পের বাইরের একটি বল খেলতে গিয়ে উইকেট কিপারের হাতে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন ফারজানা (১১)।


চতুর্থ উইকেটে নিগার ও ওয়ানডে অধিনায়ক রুমানা মিলে জয়ের কাছেই নিয়ে যাচ্ছিলেন দলকে। আচমকা বাংলাদেশ শিবিরে চিন্তার ভাঁজ ফেলে দেন ক্যাচ আউট হয়ে। পূনম যাদবের ফুলটস বল মিড অনে খেলতে গিয়ে ক্যাচ তুলে দিলে দারুণ একটি ইনিংসের সমাপ্তি ঘটে। ২৪ বলে ৪ চারে ২৭ রানের ইনিংস খেলেন নিগার।


বাকি দায়িত্বটুকু ঠিকভাবেই সামলাচ্ছিলেন ফাহিমা-রুমানা। আর শেষ দিকেই নড়বড়ে পরিস্থিতিতে পড়ে যায় বাংলাদেশ। সাত রান করে আউট হন ফাহিমা। ৬ষ্ঠ উইকেটে সানজিদা ও রুমানা মিলে জয়ের কাছেই ছিলেন। কিন্তু সানজিদা বাউন্ডারি লাইনে ক্যাচ দিয়ে বিদায় নেওয়ার পর পর রুমানাও ফিরে যান রান আউটে। ফেরার আগে ২২ বলে ২৩ রানের ইনিংস খেলেন অভিজ্ঞ এই অলরাউন্ডার।


শেষ বলে জয়ের জন্য প্রয়োজন ছিল দুই রান। জাহানারা বলটি বাঁ পাশে ঠেলেই দেন ছুট। দৌঁড়ে দুই রান নিয়ে প্রথমবারের মতো শিরোপা জয়ের উপলক্ষ এনে দেয় মেয়েরা। বাংলাদেশ চ্যাম্পিয়ন হয়েছে ৭ উইকেট হারিয়ে। ম্যাচসেরা হয়েছেন রুমানা আহমেদ। টুর্নামেন্ট সেরা ভারতের অধিনায়ক হারমানপ্রীত কর।


এর আগে টসে জিতে আগে ব্যাটিং করা ভারত সালমাদের বোলিং তোপে ৯ উইকেটে মাত্র ১১২ রানের পুঁজি তুলতে সক্ষম হয় বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা। শুরুতেই ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের চেপে ধরতে সক্ষম হয়েছিল বাংলাদেশ। দলীয় ১২ রানে স্মৃতি মন্ধানাকে ফিরিয়ে ত্রাস ছাড়ানো শুরু সালমাদের। তাকে রান আউটে শিকার করেন অধিনায়ক সালমা। ৩২ রানে চার উইকেট হারিয়ে সেই চাপরা আরও বাড়ে ভারতের। যদিও শেষ পর্যন্ত অধিনায়ক হারমানপ্রীতের অসাধারণ ইনিংসের কল্যানেই মান বাঁচে ভারতের।


একপ্রান্তে থেকে রানের চাকা সচল রেখেছেন কেবল শেষ পর্যন্ত তার দায়িত্বশীল ৫৬ রানের ইনিংসে ভর করে ৯ উইকেটে ১১২ রানে থেমেছে ভারত। ইনিংসের শেষ বলে বিদায় নিয়েছেন ভারতীয় অধিনায়ক। যোগ্য সঙ্গী না পাওয়া শেষ দিকে কিছুটা চড়াও হয়েছিলেন একাই। তার ৪২ বলের ইনিংসে ছিল ৭টি চার।


বাংলাদেশের পক্ষে দুটি করে উইকেট নেন খাদিজা তুল ‍কুবরা ও রুমানা আহমেদ। একটি করে উইকেট নেন সালমা খাতুন ও জাহানারা।


 


 

User Comments

  • খেলাধুলা