২০ এপ্রিল ২০১৯ ০:৫২:৩৭
logo
logo banner
HeadLine
শিরক এবং এর থেকে বেঁচে থাকার উপায় * দুর্যোগ-দুর্ঘটনায় করণীয়গুলো ভালোভাবে প্রচারের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর * সন্দ্বীপ পৌরসভায় ১২৫ সেট সেনেটারী লেট্রিন বিতরণ * সেবামূলক প্রতিষ্ঠান হিসাবে সেবাই আমাদের ব্রত- জাফর উল্যা টিটু * আজ ১৭ এপ্রিল : বাংলাদেশের প্রথম সরকারের শপথ গ্রহণ দিবস * ২১ এপ্রিলেই শবে বরাত * বিশ্বকাপে বাংলাদেশ দল ঘোষণা * চট্টগ্রামের শিক্ষার্থীদের জন্য প্রধানমন্ত্রীর ১০ বাস উপহার * নুসরাতকে পোড়ানোতে সরাসরি জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে নুর উদ্দিন ও শামীম * উন্নত-সমৃদ্ধ দেশ গড়তে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর * আজ পহেলা বৈশাখ, শুভ নববর্ষ ১৪২৬ * নুসরাত হত্যা : পরিকল্পনায় সিরাজউদ্দৌলা, জড়িত ১৩,আগুন দেয় ৪ জন * চারদিনের সফরে ঢাকায় ভুটানের প্রধানমন্ত্রী, লালগালিচা সংবর্ধনা * ১২ এপ্রিল, ১৯৭১ : মুজিবনগর সরকারের মন্ত্রিসভার নাম ঘোষণা * মুজিববর্ষ ও বাঙালীর রাষ্ট্র দিবস * প্রথমবারের মতো কৃষ্ণগহ্বরের ছবি দেখলো মানব জাতি * তিন লাখ টাকা মুক্তিপনের জন্য ডেমরার মাদ্রাসাছাত্র শিশু মিনরকে হত্যা করে মাদ্রাসার অধ্যক্ষ * গায়ে কেরোসিন দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেয়া সোনাগাজীর মাদ্রাসাছাত্রী সেই নুসরাতকে বাঁচানো গেল না * বঙ্গবন্ধু ও সত্যবাদী আদর্শ * সবক্ষেত্রে এগিয়ে যাওয়ার একমাত্র পথ গবেষণা - প্রধানমন্ত্রী * চট্টগ্রামে চালু হচ্ছে বিশ্বমানের হাসপাতাল * অগ্নিনিরাপত্তা নিয়ে শিগগিরই বৈঠক ডাকা হবে * ২২ বছর পর সেন্টমার্টিনে আবারও বিজিবি মোতায়েন * ২১ এপ্রিল পবিত্র শব-ই-বরাত * বিজিএমইএ নির্বাচনে পুরো প্যানেলসহ বিজয়ী রুবানা হক * খালেদার প্যারোলে মুক্তির আবেদন করলে ভেবে দেখা হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী * সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছাড়লেন ওবায়দুল কাদের * সংঘাত নয় আলোচনার মাধ্যমে রোহিঙ্গাদের নিজ দেশে ফেরানোর প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে - প্রধানমন্ত্রী * সীতাকুন্ড, মিরসরাই ও সোনাগাজী অর্থনৈতিক অঞ্চল নিয়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্পনগরের ভিত্তি স্থাপন * জহিরুল আলম দোভাষ সিডিএ'র নতুন চেয়ারম্যান *
     16,2018 Monday at 08:09:28 Share

রাশিয়া বিশ্বকাপ : পুরস্কার জিতলেন যারা

রাশিয়া বিশ্বকাপ : পুরস্কার জিতলেন যারা

রাশিয়ায় অনুষ্ঠিত সদ্য সমাপ্ত ফিফা ফুটবল বিশ্বকাপ টুর্ণামেন্টে পুরস্কার জিতে নিলেন যারাঃ
গোল্ডেন বল : গোল্ডেন বল কে পাচ্ছেন তা পরিস্কার ছিল না। ফাইনাল শেষে তা স্বচ্ছ হয়ে গেল। কিলিয়ান এমবাপ্পেকে হারিয়ে সেরা খেলোয়াড়ের পুরস্কার জিতলেন লুকা মড্রিচ।
রাশিয়া বিশ্বকাপে ক্রোয়েশিয়ার ফাইনালে ওঠার নেপথ্যে অসামান্য অবদান মড্রিচের। টুর্নামেন্টে ২ গোল করেছেন তিনি। দ্বিতীয় রাউন্ডে ডেনমার্কের বিপক্ষে অতিরিক্ত সময়ে পেনাল্টি মিস করলেও টাইব্রেকারে নিশানাভেদে তা পুষিয়ে দেন। এবারের বিশ্বকাপে সবচেয়ে দৌড়ে খেলা ফুটবলার তিনিই। ক্রোয়াটদের ৭ ম্যাচের ৩টিতেই ম্যাচসেরার পুরস্কার উঠেছে তার হাতে। এবার আর কোনো খেলোয়াড়ের হাতেই তা উঠেনি।


ক্রোয়েশিয়ার স্বপ্নযাত্রার আরেক সৈনিক ইভান রাকিটিচ। মাঝমাঠে তার সঙ্গে অসাধারণ জুটি গড়ে তোলেন মড্রিচ। তবে আসল কাজটা করেন এ মিডফিল্ডারই। পুরো দলের খেলার নাটাইটা থাকে তার হাতেই। তিনি যেমন খেলেছেন, খেলিয়েছেন ও আক্রমণ প্রতিরোধ করেছেন। দলকে মূলত পরিচালনা করেছেন এ লিকলিকে ৩২ বছরের ফুটবলারই। সার্বিক বিবেচনায় সেরা খেলোয়াড়ে পুরস্কার জিতেছেন তিনি।


গোল্ডেন বুট : মোটামুটি নিশ্চিত ছিল। ফাইনাল শেষে তা পরিষ্কার হয়ে গেল। রাশিয়া বিশ্বকাপে সোনার জুতা জিতলেন হ্যারি কেন!
এবারের বিশ্বকাপে কেনের গোল ছিল ৬টি। আর লুকাকুর ৪টি। তৃতীয় স্থান নির্ধারণী ম্যাচে ইংল্যান্ডকে ২-০ গোলে হারায় বেলজিয়াম। এ লড়াইয়ে ব্যবধান বাড়ানোর সুযোগ ছিল ইংলিশ ফরোয়ার্ডের। অন্যদিকে ব্যবধান কমানোর সুযোগ ছিল বেলজিয়ান ফরোয়ার্ডের। তবে কেউ পারেননি।


স্বাভাবিকভাবেই সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরস্কার জেতার দৌড় থেকে ছিটকে যান লুকাকু। টিকে থাকেন কেন। পরে তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন এমবাপ্পে ও গ্রিজম্যান। দুজনেরই গোল ছিল ৩টি করে। থ্রি-লায়নস ফরোয়ার্ডকে টপকে তা পেতে হলে দুই ফরাসিকে একরকম অসাধ্য সাধন করতে হতো! ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচে করতে হতো ৪টি করে গোল। শেষ পর্যন্ত তাদের পক্ষে তা সম্ভব হয়নি।


ফাইনালি লড়াইয়ে ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে ১টি করে গোল করেছেন এমবাপ্পে ও গ্রিজম্যান। ফলে তাদের গোলসংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪টি করে। উভয়ের চেয়ে ২ গোলে এগিয়ে থেকে সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরস্কার জিতলেন কেন।


এ নিয়ে ১৯৮৬ বিশ্বকাপের পর প্রথম কোনো ইংলিশ স্ট্রাইকারের হাতে উঠলো সোনার জুতা। ডিয়েগো ম্যারাডোনার দ্যুতি ছড়ানোর আসরে সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরস্কার জিতেছিলেন ব্রিটিশ কিংবদন্তি গ্যারি লিনেকার।


 


সেরা উদীয়মান খেলোয়াড় : রাশিয়া বিশ্বকাপে সেরা উদীয়মান খেলোয়াড়ের পুরস্কার জিতলেন কিলিয়ান এমবাপ্পে। মাত্র ১৯ বছর বয়সে অনন্য নৈপুণ্য প্রদর্শনের স্বীকৃতিস্বরূপ এ পুরস্কার বগলদাবা করলেন তিনি।


চলতি বিশ্বকাপে সেরা আবিষ্কার এমবাপ্পে। তার অবিশ্বাস্য গতি আর স্কিল মুগ্ধ করেছে সবাইকে। শেষ ষোলোয় আর্জেন্টিনাকে ৪-৩ গোলে বিধ্বস্ত করে ফ্রান্স। সেই ম্যাচে তার জোড়া গোলের সঙ্গে ক্ষীপ্রগতির দৌড় অনেকদিন মনে রাখবেন ফুটবলরসিকরা। ‍৪ গোল করা ১৯ বছরের বিস্ময় ফিরিয়ে এনেছেন পেলের স্মৃতি। ১৯৫৮ বিশ্বকাপে পেলের পর প্রথম ‘কিশোর’ হিসেবে এবার ন্যূনতম ৩ গোল করার কীর্তি গড়েছেন তিনি। পাশাপাশি ব্রাজিল কিংবদন্তির পর ফাইনালে গোল করার কীর্তি গড়লেন এ তরুণ।


শুধু গোল করা না, করানোটাতেও সমান দক্ষ এমবাপ্পে। বিশ্বকাপের ২১তম আসরে সতীর্থদের দিয়ে একাধিক গোল করিয়েছেন তিনি। এখানেই শেষ নয়, ফরাসিদের প্রতি গোলেই রয়েছে তার অবদান।


 


গোন্ডেন গ্লাভস: ধারণা যা করা হচ্ছিল, তাই বাস্তবে রূপ নিল। গোল্ডেন গ্লাভস জিতলেন বেলজিয়াম গোলরক্ষক থিবো কোর্তোয়া। এই প্রতিযোগিতায় তিনি হারিয়েছেন ক্রোয়েশিয়া গোলরক্ষক ড্যানিয়েল সুবাসিচকে।
রাশিয়া বিশ্বকাপে তৃতীয় হয়েছে বেলজিয়াম। বেলজিয়ানদের এই অগ্রযাত্রার অন্যতম নায়ক কোর্তোয়া। টুর্নামেন্টজুড়েই গোলবারের নিচে অতন্দ্র প্রহরী ছিলেন তিনি। কখনো ডানে-বাঁয়ে ঝাঁপিয়ে সেভ করেছেন তো, কখনোবা বাজপাখির মতো উড়ে বল লুফে নিয়েছে। তার স্বীকৃতিও দিল বিশ্বকাপ কর্তৃপক্ষ। চেলসি গোলরক্ষকের ক্যারিয়ারে এটি সেরা সাফল্য।


গোল্ডেন গ্লাভসটা পেতে পারতেন সুবাসিচও। গোটা টুর্নামেন্টে তার পারফরম্যান্সও নয়নজুড়ানো। তবে যত সর্বনাশ হলো ফাইনালে। ৪ গোল হজম করে সেই দৌড় থেকে ছিটকে যেতে হলো তাকে।


 

User Comments

  • খেলাধুলা