২১ মে ২০১৯ ৫:৪:৩২
logo
logo banner
HeadLine
ফলের বাজার নজরদারিতে টিম গঠনে হাইকোর্টের নির্দেশ * পুনর্বিন্যাস করা হয়েছে মন্ত্রিপরিষদ: শফিউল আলম * কাল থেকে অফিস করবেন ওবায়দুল কাদের * জঙ্গি সনাক্তকরণের বিজ্ঞাপন সম্প্রীতি বাংলাদেশের নয়: পীযূষ * জনপ্রতি সর্বনিম্ন ফিতরা ৭০ টাকা * সুস্থ হয়ে দেশে ফিরলেন ওবায়দুল কাদের * হাইকোর্টের নির্দেশ, কোন মুক্তিযোদ্ধাকে ভুয়া বলে সম্বোধন করা যাবে না * 'গ্রুপ ২০'তে অভিষিক্ত হচ্ছে বাংলাদেশ * ইতালি যাওয়ার পথে ভূমধ্যসাগরে নৌকাডুবিতে নিহত ২৭ বাংলাদেশির পরিচয় শনাক্ত * বর্তমানে দেশে দারিদ্র্যের হার ২১ দশমিক ৮ শতাংশ * এখনো বিক্রি হচ্ছে নিষিদ্ধ সেই ৫২ পণ্য * এসিআই, তীর, রুপচাঁদা, প্রাণসহ ১৮টি কোম্পানীর ৫২টি মানহীন খাদ্যপণ্য বিক্রি বন্ধে হাইকোর্টের নির্দেশ * বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট দিয়ে সম্প্রচার শুরু হচ্ছে আজ * ১৫ মে দেশে ফিরছেন ওবায়দুল কাদের * লন্ডন সফর শেষে দেশে ফিরলেন প্রধানমন্ত্রী * সৌদি আরবের প্রস্তাবিত ৩৫ বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ আনার প্রক্রিয়া শুরু * বিশ্বের কোথাও মুসলিমরা রোজা রাখছেন ২৩ ঘণ্টা আবার কোথাও সাড়ে ৯ ঘন্টা * খাদ্যের মান নিয়ন্ত্রণের প্রশ্নে বিএসটিআই'র কাজে হাইকোর্টের অসন্তোষ * খাদ্যে ভেজাল ও দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে জিরো টলারেন্স, জনগণকে স্বস্তি দিতে প্রথম রমজান থেকেই অভিযান শুরু * বেসরকারী টেলিভিশনে সংবাদ প্রচারের সময় কোন বিজ্ঞাপন নয় - হাইকোর্ট * পদ্মায় বসল ১২তম স্প্যান, দৃশ্যমান ১৮শ' মিটার * চলে গেলেন সুবীর নন্দী * পবিত্র রমজান মাসের চাঁদ দেখা গেছে, কাল থেকে রোজা শুরু * এস এস সি'তে পাসের হার ৮২.২০% * এসএসসির ফল আজ * প্রধানমন্ত্রীর চোখের অস্ত্রোপচার সম্পন্ন * ফণি' দুর্গতদের দ্রুত ত্রাণ দেয়ার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর * ক্রমশ দুর্বল হয়ে পড়ছে ফণি, বিভিন্ন জেলায় ৫ জনের মৃত্যু, বন্দরসমূহে ৩ নং সতর্ক সংকেত * খর্ব শক্তির ফণি'র মূল অংশ সকালে বাংলাদেশে প্রবেশ করতে পারে * উড়িষ্যা তাণ্ডব চালিয়ে পশ্চিমবংগ হয়ে বাংলাদেশের পথে ফণী' *
     09,2018 Tuesday at 09:08:00 Share

কার্যকর হচ্ছে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনসহ ৬টি বিল, রাষ্ট্রপতির স্বাক্ষর

কার্যকর হচ্ছে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনসহ ৬টি বিল, রাষ্ট্রপতির স্বাক্ষর

সংসদে পাস হওয়া আলোচিত ডিজিটাল আইন কার্যকর হচ্ছে। জাতীয় সংসদের ২২তম অধিবেশনে পাস হওয়া বিলটিসহ মোট ৬টি বিলে সোমবার সম্মতিসূচক স্বাক্ষর করেছেন রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ। নিয়মানুযায়ী, রাষ্ট্রপতি কোন বিলে স্বাক্ষরের পর সেটি আইন হিসেবে গণ্য হয়। এখন এটি গেজেট আকারে প্রকাশ করবে সরকার।


সংসদ সচিবালয় জানিয়েছে, রাষ্ট্রপতি সোমবার আরেকটি আলোচিত সড়ক পরিবহন বিলসহ মোট ৬টি বিলে সম্মতিসূচক স্বাক্ষর করেছেন। নতুন আইনে পরিণত হওয়া এসব বিল হচ্ছে- সড়ক পরিবহন বিল-২০১৮, আল-হাইআতুল উলয়া লিল-জামিআতিল কওমিয়া বাংলাদেশের অধীন কওমি মাদ্রাসাসমূহের দাওয়ায়ে হাদিসের (তাকমিল) সনদ মাস্টার্স ডিগ্রীর (ইসলামিক স্টাডিজ ও আরবী) সমমান (কওমি মাদ্রাসা) বিল-২০১৮, জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ বিল-২০১৮, পণ্য উৎপাদনশীল রাষ্ট্রায়ত্ত শিল্প প্রতিষ্ঠান শ্রমিক (চাকরি শর্তাবলী) বিল- ২০১৮, বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা কল্যাণ ট্রাস্ট বিল-২০১৮ এবং কমিউনিটি ক্লিনিক সহায়তা ট্রাস্ট বিল-২০১৮। এসব বিল সংসদের ২২তম অধিবেশনে পাস হয়েছে।


ডিজিটাল নিরাপত্তা বিলটির খসড়া তৈরির সময়ই এর বিভিন্ন ধারার বিরোধিতা করে আসছিলেন অনেক সাংবাদিক। বিশেষ করে বিলটির ৮, ২১, ২৫, ২৮, ২৯, ৩১, ৩২, ৪৩ ও ৫৩ ধারা নিয়ে আপত্তি জানায় কয়েক সম্পাদক। সরকারের তিন মন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক করে কয়েক দৈনিক পত্রিকার সম্পাদক ওই আইন ক’টির ধারা সংশোধনের দাবি জানিয়ে এসেছিলেন।


তবে আইনে পরিণত হওয়া ডিজিটাল নিরাপত্তা বিলটি নিয়ে সাংবাদিকদের উদ্বিগ্ন হওয়ার কোন কারণ নেই বলে আইনমন্ত্রীসহ কয়েক মন্ত্রী আশ্বাস দিয়েছেন। সবশেষ জাতিসংঘ অধিবেশনে যোগদান শেষে দেশে ফিরে জনাকীর্ণ সাংবাদিক সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও এ কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রী স্পষ্ট করেই বলেছেন, কোন সাংবাদিক ‘মিথ্যা তথ্য’ দিলে বা ‘বিভ্রান্ত’ না করলে এ আইন নিয়ে উদ্বিগ্ন হওয়ার কোন কারণ নেই। কারও যদি অপরাধী মন না থাকে বা ভবিষ্যতে অপরাধ করবে এ রকম পরিকল্পনা না থাকে, তাহলে তার উদ্বিগ্ন হওয়ার কোন কারণ নেই। ফৌজদারি কার্যবিধিতে বিভিন্ন অপরাধের বিচারের বিষয়ে যা বলা ছিল, সেগুলোর সঙ্গে ডিজিটাল ডিভাইস ব্যবহার করে অপরাধের বিষয়গুলো যুক্ত করেই নতুন আইনটি করা হয়েছে। তাই আমি যতক্ষণ আছি সাংবাদিকদের উদ্বিগ্ন হওয়ার কিছু নেই, ভয়ের কিছু নেই। ভয় পাবে তারা যারা অপরাধ করবে, যাদের অপরাধী মন।


২০০৬ সালের তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধারা নিয়ে বিভিন্ন মহল থেকে সমালোচনা ছিল। ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন প্রণয়নের সময় থেকে সরকারের তরফ থেকে বলা হয়েছিল ওই আইনের ৫৭ ধারা বাতিল করে নতুন আইনে বিষয়গুলো স্পষ্ট করা হবে।


এর আগে গত ১ অক্টোবর একই অধিবেশনে পাস হওয়া ১১টি বিলে সম্মতি দিয়ে স্বাক্ষর করেছিলেন রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ। এগুলো হচ্ছে- বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশন বিল-২০১৮, বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ বিল-২০১৮, বস্ত্র বিল-২০১৮, সিলেট মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় বিল-২০১৮, যৌতুক নিরোধ বিল-২০১৮, সার (ব্যবস্থাপনা) (সংশোধন) বিল-২০১৮, জাতীয় পরিকল্পনা উন্নয়ন একাডেমি বিল-২০১৮, হিন্দু দর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্ট বিল-২০১৮, বাংলাদেশ কর্মচারী কল্যাণ বোর্ড (সংশোধন বিল-২০১৮, কৃষি বিপণন বিল-২০১৮ এবং জাতীয় দক্ষতা উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ বিল-২০১৮।

User Comments

  • জাতীয়